পিরোজপুরে ভাইকে কুপিয়ে বোনকে তুলে নিয়ে গণধর্ষণ!

মতবাদ ডেস্ক | ১২:২৯, মে ২৩ ২০২০ মিনিট

পিরোজপুরের কাউখালীতে এক যুবককে কুপিয়ে আহত করে তার বোনকে তুলে নিয়ে গণধর্ষণ করেছে চিহ্নিত দুর্বৃত্তরা। গতকাল ২২ মে, শুক্রবার রাতে উপজেলার শিয়ালকাঠী ইউনিয়নের জোলাগাতি গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। নির্যাতিতা তরুণী ও তার আহত ভাইকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। তারা পেশায় মৎস্য শিকারী বলে জানা গেছে। স্থানীয় ইউপি সদস্য নূরে আলমের বরাতে ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন ওই ইউপির ৮নং জোলাগাতি ওয়ার্ডের সদস্য মামুন হোসেন। হামলায় আহত যুবক জানান, রাতে ওই গ্রামের শিকদার বাড়ির কাছে আসলে তার বোনকে তুলে নিতে যায় স্থানীয় ৬-৭ জন যুবক। তাদের বাধা দিলে জামাল বয়াতি (২৮), জিয়াদুল শিকদার (২৫), আবু বক্কর ছিদ্দিকী (২৪), মিজান শিকদার (২৬), ইব্রাহিম মৃধা (২৩) তাদের কুপিয়ে ও মারধোর করে তার বোনকে তুলে নিয়ে যায়। পরে কামাল গাজী (৩৫) ও আকব্বর আলী হাওলাদারের ছেলে শাহিন হাওলাদার (২৫) ওই তরুণীকে ধর্ষণ করে বলে অভিযোগ করেন তার ভাই। পরে স্থানীয়রা তাদের উদ্ধার করে শিকদার বাড়ির কাছের একটি ব্রিজে নিয়ে আসেন। সেখান থেকে রাত আনুমানিক ১২টার দিকে অজ্ঞান অবস্থায় ওই তরুণী ও তার ভাইকে গুরুতর অবস্থায় উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। হাসপাতালের চিকিৎসক ডা. সুব্রত বিশ্বাস জানান, ওই তরুণীকে হাসপাতালে ভর্তি করার কিছু পর তার জ্ঞান ফেরে। তার ভাইয়ের ডান হাঁটু, ও বাম হাতের কনুই থেতলানো এবং মাথার উপরে ডান পাশে কাটা চিহ্ন পাওয়া গেছে বলেও জানান তিনি। এ ব্যাপারে এখানো কোনো মামলা দায়ের হয়নি উল্লেখ করে কাউখালী থানার ওসি (তদন্ত) মো. রেজাউল করিম রাজিব বলেন, ‘রাত ২টার দিকে সরেজমিন পরিদর্শন করা হয়েছে। মেডিক্যাল পরীক্ষার জন্য তাকে পিরোজপুর জেলা হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।’ ঘটনার সঙ্গে জড়িত স্থানীয় শীর্ষ সন্ত্রাসী কামাল গাজীর থানায় কয়েকটি মামলা রয়েছে বলেও জানান এ পুলিশ কর্মকর্তা।