ঢাকা বৃহস্পতিবার, ০৯ ডিসেম্বর ২০২১

Motobad news

ইসলাম ধর্মীয় উপাসনালয়ে ভাঙচুর, হত্যাকাণ্ড সমর্থন করেনা : পুলিশ কমিশনার

ইসলাম ধর্মীয় উপাসনালয়ে ভাঙচুর, হত্যাকাণ্ড সমর্থন করেনা : পুলিশ কমিশনার

বিএমপি কমিশনার বলেছেন, ইসলাম কখনোই ধর্মীয় উপাসনালয়ে ভাঙচুর, হত্যাকাণ্ড কিংবা অগ্নিসংযোগ সমর্থন করেনা। সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি রক্ষায় নগরবাসীকে সচেতন করতে আজ বৃহস্পতিবার বিকেলে বিএমপি কর্তৃক বরিশাল মহানগরীতে বিট ভিত্তিক সপ্তাহব্যাপী চলমান সচেতনতামূলক সভায় বক্তব্য প্রদানকালে এ কথা বলেন পুলিশ কমিশনার মোঃ শাহাবুদ্দিন খান বিপিএম-বার।

এ-সময় তিনি বলেন, সকল ধর্মের মানুষ নিয়েই এই দেশ। হিন্দু-মুসলিম-বৌদ্ধ-খ্রিস্টান সহ সকল ধর্মের মানুষ মিলেই আমরা বঙ্গবন্ধুর নেতৃত্বে এই দেশটাকে স্বাধীন করেছি। তাই ধর্মীয় দিক বিবেচনায় কেউ সংখ্যালঘু হলেও এদেশের মানুষ হিসেবে, এদেশের নাগরিক হিসেবে কেউ এখানে সংখ্যালঘু নয়। এই দেশে সবার সমান অধিকার। আর এটাই আমাদের ঐতিহ্য, এটাই আমাদের সৌন্দর্য, এটাই আমাদের শক্তি।

তিনি বলেন, তাই কোন দুষ্কৃতিকারী যেন আমাদের ইতিহাস-ঐতিহ্য ও সম্প্রীতির বন্ধন কে নষ্ট করতে না পারে, এজন্য আমাদের সবাইকে সজাগ থাকতে হবে।এসব দুষ্কৃতিকারীদের সামাজিকভাবে মোকাবেলা করার জন্য আমাদের সকলকে ঐক্যবদ্ধভাবে প্রস্তুত থাকতে হবে।

এ সময় তিনি অপরাধ নিবারণ ও সমাজে শান্তি-শৃঙ্খলা প্রতিষ্ঠায় বিট পুলিশিং ও কমিউনিটি পুলিশিং এর ভূমিকা তুলে ধরতে গিয়ে বলেন, বিট পুলিশিং ও কমিউনিটি পুলিশিং হল একটি অরাজনৈতিক, সামাজিক ও প্রশাসনিক উদ্যোগ।
পুলিশ কমিশনার বিএমপি'র থানা সমূহের বিগত ছয় মাসের একটি পরিসংখ্যান তুলে ধরে বলেন, বিগত ছয় মাসে বরিশাল মহানগর এলাকার থানা সমূহে ৮৩৩ টি মামলা হয়েছে। এই ৮৩৩ টি মামলার কার্যক্রমের উপর বিবেচনা করেই মূলত আপনারা জনগণ পুলিশ কে মূল্যায়ন করে।
কিন্তু বিগত ছয় মাসে এই ৮৩৩ টি নিয়মিত মামলার বাহিরেও মহানগর পুলিশ ৯৯৯ এর মাধ্যমে ১৩০০ টি, বিট পুলিশিং এর মাধ্যমে ১০৩৬ টি ও থানায় মামলা বা জিডির বাহিরে-৩০৩২ টিসহ
সর্বমোট ৫১৩৩ টি বিভিন্ন ধরনের অপরাধ/সমস্যা দানাবাধার আগেই বিট পুলিশিং ও কমিউনিটি পুলিশিংকে কাজে লাগিয়ে সেগুলোর সুষ্ঠু সামাজিক সমাধান করেছে।

উপ-পুলিশ কমিশনার দক্ষিণ মােঃ আলী আশরাফ ভুঞা, বিপিএম-বার সহ বিএমপির অন্যান্য শীর্ষ কর্মকর্তাগণ সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি রক্ষায় মহানগরীর ২৩টি বিট এলাকায় হিন্দু-মুসলিম
বৌদ্ধ-খ্রিস্টান সহ ধর্ম-বর্ণ নির্বিশেষে সকল শ্রেণী-পেশার জনগণকে নিয়ে অনুষ্ঠিত সচেতনতামূলক সভায় অংশগ্রহণ করেন। এসময় ধর্ম-বর্ণ নির্বিশেষে বিট এলাকার সকল শ্রেণী-পেশার মানুষ উপস্থিত ছিলেন।

প্রসংগত, বিএমপি'র শীর্ষ কর্মকর্তাদের উপস্থিতিতে বিট এলাকার হিন্দু-মুসলিম-বৌদ্ধ-খ্রিস্টান সহ ধর্ম-বর্ণ নির্বিশেষে সকল শ্রেণী-পেশার জনগণকে নিয়ে আজ মহানগরীর ২৩টি বিট এলাকায় সচেতনতামূলক সভা অনুষ্ঠিত হয়, যা বিএমপি'র ৯৭ টি বিটে সপ্তাহব্যাপী চলমান থাকবে।


এমবি